Medicine

উচ্চ রক্তচাপ কি? চিকিৎসা ও নিয়ন্ত্রনের উপায়

আজকে আমরা কথা বলব বহুল পরিচিত একটি রোগ যেটা আমাদের ঘরে ঘরে অনেকেরই হয়ে থাকে। সেটা হল hypertension অথবা উচ্চ রক্তচাপ। কাকে আপনি উচ্চ রক্তচাপ বা হাইপারটেনশন বলবেন ? আমরা ডাক্তাররা যখন প্রেসক্রিপশনে আপনাদের blood pressure লিখে দিই আপনি খেয়াল করবেন একটা দাগ দিয়ে বাম পাশে একটা নাম্বার লিখে দেই।

সাধারণত এই নাম্বারগুলি হয় ১১০, ১২০, ১৩০, ১৪০। এটা diastolic blood pressure। আর দান পাশের নাম্বার গুলি সাধারনত ৬০, ৭০, ৮০, ৯০ হয়। এটি systolic blood pressure। যখন ১৪০ এর উপরে চলে যাবে তখন আমরা এটাকে হাই-প্রেসার আর ডানদিকে নাম্বার  যখন ৯০ এর উপরে চলে যাবে তখন আমরা এটাকে হাই প্রেসার বলে থাকি। সেক্ষেত্রে আপনার করণীয় কি ? অবশ্যই আপনাকে জীবনযাপনের পদ্ধতির কিছু পরিবর্তন আনতে হবে অর্থাৎ সঠিক জীবনযাপন করতে হবে এবং ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী নিয়মিত ওষুধ খেতে হবে। আপনি বলতে পারেন আমার ব্লাড প্রেসার বেশি আছে কিন্তু আমিতো অনেক ভাল আছি তাহলে কেন ওষুধ খেতে হবে। কারণ এই উচ্চ রক্তচাপ ভিতরে ভিতরে আপনার কিডনি এবং মস্তিষ্ক অনেক ক্ষতি করতে পারে। দেখা যাবে ৪/৫ বছর পর উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে না রাখার কারণে আপনি ভবিষ্যতে কিডনি রোগী অথবা ব্রেইন স্ট্রোক করতে পারেন। একদিন আপনার অবশ্যই হার্টের রোগ হতে পারে যদিও আপনি উচ্চ রক্তচাপ থেকে কোন কষ্ট পাচ্ছিলেন না। উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখতে হবে। সুতরাং আপনাকে নিয়মিত প্রতিদিন আধা ঘন্টার মত সময় হাঁটতে হবে। আরেকটু জোরে জোরে হাঁটা। ঠিক যেমন আমরা তাড়াতাড়ি কোথাও যাওয়ার জন্য হাটি। এমন করে হাঁটতে হবে প্রতিদিন অন্তত ৩০ মিনিট। খাদ্যভ্যাসের মধ্যে শাকসবজি ও ফলমূল খেতে হবে। যারা ধূমপান করেন তাদের ধূমপান একেবারেই পরিহার করতে হবে। যাদের hypertension আছে তাদের জন্য ধূমপান একদম নিষেধ। তৈল জাতীয় বা চর্বিজাতীয় খাবার গুলো আছে সেগুলো পরিহার করতে হবে। এর পাশাপাশি ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী নিয়মিত হাই ব্লাড প্রেশারের ওষুধ সেবন করতে হবে। অনেকে বলে ডাক্তার সাহেব একবার high blood pressure ঔষধ শুরু করি তাহলে তো সারাজীবন খেতে হবে। আমরা বলি অবশ্যই একটি ওষুধ খেয়ে যদি আপনি সারা জীবন সুস্থ থাকেন তাহলে কেন খাবেন না ? আপনিতো প্রতিদিন অনেক কিছুই খাচ্ছেন তাহলে সুস্থ থাকার জন্য প্রতিদিন নিয়মিতভাবে ওষুধ খাবেন না ? আমাদের আরেকটি জিনিস বুঝতে হয় সেটা হলো কিছুদিন ওষুধ খাওয়ার পর ব্লাড প্রেসার কমে যাওয়ার পরে অনেক রোগী ওষুধ খাওয়া বন্ধ করে দেয়। তখন দেখা যায় কিছুদিন পরে আবার উচ্চ রক্তচাপ দেখা দেয় এবং আবার ডাক্তারের কাছে এসে বলে ডাক্তার সাহেব আমার তো উচ্চরক্তচাপ আবার বেড়ে গেছে। আমরা দেখি মাঝখানে রোগীর ওষুধ বন্ধ রাখে। হাইপারটেনশন বা উচ্চ রক্তচাপ কখনোই নির্মূল হয় না। আপনি সঠিক জীবন যাপনের মাধ্যমে এ সমস্যাটাকে নিয়ন্ত্রণে রাখতে পারবেন। সুতরাং blood pressure যদি নিচে না আসে তাহলে কখনই ওষুধ বন্ধ করবেন না। আর সবসময় ডাক্তারের পরামর্শ মত চিকিৎসা গ্রহন করবেন।

Previous Post Next Post

No Comments

Leave a Reply